ঢাকা ০১:১০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২২ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ




বানারীপাড়ায় বিশেষ কম্বিং অপারেশনে জাটকাসহ অবৈধ জাল উদ্ধার, আটক- ২

নাহিদ সরদার ,বানারীপাড়া প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত : ১২:৩৭:০৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২২ ১১০ বার পঠিত
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
print news

নাহিদ সরদার ,বানারীপাড়া(বরিশাল)প্রতিনিধি:

বরিশালের বানারীপাড়ায় বিশেষ কম্বিং অপারেশনে মৎস্য কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে জাটকা ইলিশসহ দুজনকে আটক করা হয়েছে।  বুধবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) দিনব্যাপী অভিযানে ৫ মণেরও বেশি জাটকা ও ৩টি অবৈধ বেহুন্দি জালসহ দুইজন মাছ শিকারীকে আটক করা হয় । বানারীপাড়ায় চলমান প্রথম থেকে চতুর্থ ধাপের এ কম্বিং অপারেশনে অবৈধ বেহুন্দি জাল প্রায় শেষের পথে। এতে বেঁচে যাবে কোটি কোটি ইলিশের পোনা (জাটকা), তবে এই ইলিশের পোনাকে অনেকেই চাপিলা কিংবা গুঁড়া মাছ হিসেবে চেনে। প্রকৃতপক্ষে এ সবই জাটকা ইলিশ। জাটকা রক্ষার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করায় অবৈধ জাল কমেছে ৮৫ শতাংশ। বানারীপাড়া উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ বলেন, একের পর এক জেলেদের অবৈধ জাল উদ্ধার করে আগুনে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হচ্ছে। অবৈধ জাল শূন্যের কোঠায় নিয়ে আসার জন্য বিভিন্ন মোবাইলকোর্ট ও কম্বিং অপারেশন চলমান রয়েছে বলেও তিনি জানান।। অভিযান শেষে গ্রেফতারকৃত আসামিদ্বয়কে বানারীপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রিপন কুমার সাহা কারাদণ্ড দেন। জব্দ করা মাছ বিভিন্ন এতিমখানা ও আশ্রয়ণ প্রকল্পের দুস্থ মানুষের মাঝে বিতরণ করা হয়। এদিকে একের পর এক অবৈধ জাল জব্দ করায় বানারীপাড়া উপজেলার বিভিন্ন পর্যায়ের জনসাধারণ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তাকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন
ট্যাগস :




ফেসবুকে আমরা




x

বানারীপাড়ায় বিশেষ কম্বিং অপারেশনে জাটকাসহ অবৈধ জাল উদ্ধার, আটক- ২

প্রকাশিত : ১২:৩৭:০৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২২
print news

নাহিদ সরদার ,বানারীপাড়া(বরিশাল)প্রতিনিধি:

বরিশালের বানারীপাড়ায় বিশেষ কম্বিং অপারেশনে মৎস্য কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে জাটকা ইলিশসহ দুজনকে আটক করা হয়েছে।  বুধবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) দিনব্যাপী অভিযানে ৫ মণেরও বেশি জাটকা ও ৩টি অবৈধ বেহুন্দি জালসহ দুইজন মাছ শিকারীকে আটক করা হয় । বানারীপাড়ায় চলমান প্রথম থেকে চতুর্থ ধাপের এ কম্বিং অপারেশনে অবৈধ বেহুন্দি জাল প্রায় শেষের পথে। এতে বেঁচে যাবে কোটি কোটি ইলিশের পোনা (জাটকা), তবে এই ইলিশের পোনাকে অনেকেই চাপিলা কিংবা গুঁড়া মাছ হিসেবে চেনে। প্রকৃতপক্ষে এ সবই জাটকা ইলিশ। জাটকা রক্ষার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করায় অবৈধ জাল কমেছে ৮৫ শতাংশ। বানারীপাড়া উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ বলেন, একের পর এক জেলেদের অবৈধ জাল উদ্ধার করে আগুনে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হচ্ছে। অবৈধ জাল শূন্যের কোঠায় নিয়ে আসার জন্য বিভিন্ন মোবাইলকোর্ট ও কম্বিং অপারেশন চলমান রয়েছে বলেও তিনি জানান।। অভিযান শেষে গ্রেফতারকৃত আসামিদ্বয়কে বানারীপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রিপন কুমার সাহা কারাদণ্ড দেন। জব্দ করা মাছ বিভিন্ন এতিমখানা ও আশ্রয়ণ প্রকল্পের দুস্থ মানুষের মাঝে বিতরণ করা হয়। এদিকে একের পর এক অবৈধ জাল জব্দ করায় বানারীপাড়া উপজেলার বিভিন্ন পর্যায়ের জনসাধারণ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তাকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন