ঢাকা ০৪:১৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ




দেশে সাক্ষ্য আইনের খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা

কালের ধারা ২৪ ডেস্ক :
  • প্রকাশিত : ১২:৫৬:৪০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ জুলাই ২০২২ ৬৫৪ বার পঠিত
কালের ধারা ২৪, অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
print news

দেশে সাক্ষ্য আইনের খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা

দেশে সাক্ষ্য আইনের (সংশোধন) খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। আইনের খসড়া অনুযায়ী ভিকটিমকে চারিত্রিক বিষয়ে প্রশ্ন করতে হলে সর্বপ্রথম  আদালতের অনুমতি নিতে হবে। এছাড়া কোনোভাবেই তাকে আগে প্রশ্ন করা যাবে না। আজ সোমবার (২৫ জুলাই)  অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার বৈঠকে খসড়াটি চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠক হয়। প্রধানমন্ত্রী ভার্চ্যুয়ালি সভায় অংশ নেন। পরে সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে বৈঠকের সিদ্ধান্ত জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

মন্ত্রিপরিষদ সচিব  বলেন, গত ১৪ মার্চ এই খসড়াটি নীতিগত অনুমোদন দেওয়া হয়েছিল। সংশোধনীর বিষয়বস্তু বলতে গিয়ে তিনি বলেন, অনেক সময় বিপক্ষের লোকজনের ভিকটিমকে চরিত্রহীন প্রমাণ করার প্রবণতা থাকে। এ জন্য অপ্রাসঙ্গিক প্রশ্ন করা হয়। এটি নিয়ন্ত্রণ করে দেওয়া হয়েছে। কারও চারিত্রিক বিষয়ে প্রশ্ন করতে হলে আগে আদালতের অনুমতি নিতে হবে। আদালতই বিবেচনা করবেন কারও চারিত্রিক বিষয়ে প্রশ্ন করা যাবে কি না। এ ছাড়া ডিজিটাল আদালত, ডিজিটাল সাক্ষ্য ইত্যাদি কিছু বিষয়েও সংশোধনের প্রস্তাব করা হয়েছে আইনের খসড়ায়।

আরও পড়ুন : বক্সার মোহাম্মদ আলীর বেল্ট ৫৮ কোটিতে বিক্রি

উক্ত বৈঠকে বাংলাদেশ শিল্প-নকশা আইন ও গ্রাম আদালত (সংশোধন) আইনের খসড়া, সামুদ্রিক মৎস্য আহরণ নীতিমালা এবং বাংলাদেশ ও রুয়ান্ডার মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বিমান চলাচলসংক্রান্ত চুক্তির খসড়া অনুমোদন দেওয়া হয়।

 




ফেসবুকে আমরা







x

দেশে সাক্ষ্য আইনের খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা

প্রকাশিত : ১২:৫৬:৪০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ জুলাই ২০২২
print news

দেশে সাক্ষ্য আইনের খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা

দেশে সাক্ষ্য আইনের (সংশোধন) খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। আইনের খসড়া অনুযায়ী ভিকটিমকে চারিত্রিক বিষয়ে প্রশ্ন করতে হলে সর্বপ্রথম  আদালতের অনুমতি নিতে হবে। এছাড়া কোনোভাবেই তাকে আগে প্রশ্ন করা যাবে না। আজ সোমবার (২৫ জুলাই)  অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার বৈঠকে খসড়াটি চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠক হয়। প্রধানমন্ত্রী ভার্চ্যুয়ালি সভায় অংশ নেন। পরে সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে বৈঠকের সিদ্ধান্ত জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

মন্ত্রিপরিষদ সচিব  বলেন, গত ১৪ মার্চ এই খসড়াটি নীতিগত অনুমোদন দেওয়া হয়েছিল। সংশোধনীর বিষয়বস্তু বলতে গিয়ে তিনি বলেন, অনেক সময় বিপক্ষের লোকজনের ভিকটিমকে চরিত্রহীন প্রমাণ করার প্রবণতা থাকে। এ জন্য অপ্রাসঙ্গিক প্রশ্ন করা হয়। এটি নিয়ন্ত্রণ করে দেওয়া হয়েছে। কারও চারিত্রিক বিষয়ে প্রশ্ন করতে হলে আগে আদালতের অনুমতি নিতে হবে। আদালতই বিবেচনা করবেন কারও চারিত্রিক বিষয়ে প্রশ্ন করা যাবে কি না। এ ছাড়া ডিজিটাল আদালত, ডিজিটাল সাক্ষ্য ইত্যাদি কিছু বিষয়েও সংশোধনের প্রস্তাব করা হয়েছে আইনের খসড়ায়।

আরও পড়ুন : বক্সার মোহাম্মদ আলীর বেল্ট ৫৮ কোটিতে বিক্রি

উক্ত বৈঠকে বাংলাদেশ শিল্প-নকশা আইন ও গ্রাম আদালত (সংশোধন) আইনের খসড়া, সামুদ্রিক মৎস্য আহরণ নীতিমালা এবং বাংলাদেশ ও রুয়ান্ডার মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বিমান চলাচলসংক্রান্ত চুক্তির খসড়া অনুমোদন দেওয়া হয়।