ঢাকা ০৪:২০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ




ঝালকাঠি সুগন্ধা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে দুই লক্ষ টাকা অর্থদণ্ড

কালের ধারা ২৪ ডেস্ক :
  • প্রকাশিত : ১১:১১:৩১ অপরাহ্ন, সোমবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২ ১৫১ বার পঠিত
কালের ধারা ২৪, অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
print news

ঝালকাঠি সুগন্ধা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে দুই লক্ষ টাকা অর্থদণ্ড

বিজ্ঞাপন

ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ ঝালকাঠি সুগন্ধা নদীতে রবিবার রাত আটটার দিকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে দুই ড্রেজার সহ তিন জনকে আটক করেছেন ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক কার্যালয়য়ের আরডিসি মোঃ বশির গাজী। আটককৃত ড্রেজার ব্যবসায়ী হলো ঝালকাঠি কৃষ্ণকাঠি এলাকার সাবেক কাউন্সিলর মোঃ মজিবুর রহমান( ৫০) পূর্ব চাঁদকাঠি এলাকার মোঃ উজ্জ্বল  (৪০)এবং ঝালকাঠি পরমহল এলাকার জসিম (৪২)। পরে ঝালকাঠি জেলা প্রশাসকের কার্যালয় আরডিসি মোঃ বসির গাজী ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে আটককৃত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে সাবেক কাউন্সিলর মোঃ মজিবর খলিফাকে এক লক্ষ টাকা জসিমকে পঞ্চশ হাজার টাকা,উজ্জ্বল কে পঞ্চাশ হাজার টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন। আটককৃত ড্রেজার ব্যবসায়ীরা ভ্রাম্যমাণ আদালতে নগদ দুই লক্ষ টাকা বুঝিয়ে দিয়ে মুক্তি পান।

ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের আরডিসি মোঃ বসির গাজী অবৈধ ড্রেজার ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে বলেন ,ঝালকাঠিতে অবৈধভাবে নদী থেকে কোন বালি উত্তোলন চলবেনা আপনাদের জন্য লঞ্চঘাট চর এলাকার লোকজনের জমি ঘরবাড়ি ভেঙে যাচ্ছে এবং হুমকির মুখে একটি মসজিদ রয়েছে। এলাকাবাসী বারবার আমাদের কাছে অভিযোগ করছেন। তিন চার দিন আগেও অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে তিনজনকে জেলে পাঠানো হয়েছে তবুও আপনারা অবৈধ ব্যবসা বন্ধ করেন না। আমি যতদিন ঝালকাঠিতে আছি ঝালকাঠিতে অবৈধভাবে নদী থেকে বালু উত্তোলন করা যাবে না। এরপরেও যদি আপনাদের অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ না করেন আমি আপনাদের ড্রেজার আটক করে নিলামে তুলব এবং আপনাদের সবাইকে জেলে পাঠাবো এভাবেই কঠোর হুঁশিয়ারি করেন।

ট্যাগস :




ফেসবুকে আমরা







x

ঝালকাঠি সুগন্ধা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে দুই লক্ষ টাকা অর্থদণ্ড

প্রকাশিত : ১১:১১:৩১ অপরাহ্ন, সোমবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২
print news

ঝালকাঠি সুগন্ধা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে দুই লক্ষ টাকা অর্থদণ্ড

বিজ্ঞাপন

ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ ঝালকাঠি সুগন্ধা নদীতে রবিবার রাত আটটার দিকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে দুই ড্রেজার সহ তিন জনকে আটক করেছেন ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক কার্যালয়য়ের আরডিসি মোঃ বশির গাজী। আটককৃত ড্রেজার ব্যবসায়ী হলো ঝালকাঠি কৃষ্ণকাঠি এলাকার সাবেক কাউন্সিলর মোঃ মজিবুর রহমান( ৫০) পূর্ব চাঁদকাঠি এলাকার মোঃ উজ্জ্বল  (৪০)এবং ঝালকাঠি পরমহল এলাকার জসিম (৪২)। পরে ঝালকাঠি জেলা প্রশাসকের কার্যালয় আরডিসি মোঃ বসির গাজী ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে আটককৃত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে সাবেক কাউন্সিলর মোঃ মজিবর খলিফাকে এক লক্ষ টাকা জসিমকে পঞ্চশ হাজার টাকা,উজ্জ্বল কে পঞ্চাশ হাজার টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন। আটককৃত ড্রেজার ব্যবসায়ীরা ভ্রাম্যমাণ আদালতে নগদ দুই লক্ষ টাকা বুঝিয়ে দিয়ে মুক্তি পান।

ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের আরডিসি মোঃ বসির গাজী অবৈধ ড্রেজার ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে বলেন ,ঝালকাঠিতে অবৈধভাবে নদী থেকে কোন বালি উত্তোলন চলবেনা আপনাদের জন্য লঞ্চঘাট চর এলাকার লোকজনের জমি ঘরবাড়ি ভেঙে যাচ্ছে এবং হুমকির মুখে একটি মসজিদ রয়েছে। এলাকাবাসী বারবার আমাদের কাছে অভিযোগ করছেন। তিন চার দিন আগেও অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের দায়ে তিনজনকে জেলে পাঠানো হয়েছে তবুও আপনারা অবৈধ ব্যবসা বন্ধ করেন না। আমি যতদিন ঝালকাঠিতে আছি ঝালকাঠিতে অবৈধভাবে নদী থেকে বালু উত্তোলন করা যাবে না। এরপরেও যদি আপনাদের অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ না করেন আমি আপনাদের ড্রেজার আটক করে নিলামে তুলব এবং আপনাদের সবাইকে জেলে পাঠাবো এভাবেই কঠোর হুঁশিয়ারি করেন।