ঢাকা ০৪:০২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ৭ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ




কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ নেতা কায়েসের ঈদ উপহার

এনামুল হক,ময়মনসিংহ প্রতিনিধি :
  • প্রকাশিত : ০৮:৫৭:৫২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ মে ২০২১ ৫৯০ বার পঠিত
কালের ধারা ২৪, অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
print news

এনামুল হক,ময়মনসিংহ প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের ত্রিশালে ৩২টি পরিবারকে ঈদ উপহার প্রদান করলেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা আল মাহমুদ কায়েস।

বিজ্ঞাপন

৬ মে(বৃহস্পতিবার)  দুপুরে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে ছাত্রলীগ নেতা আল মাহমুদ কায়েস পোলাওয়ের চাল, ডাল, তেল, আলু, সাবান, সেমাই, চিনি ও মাস্ক বিতরণ করেন।

সাহায্য নিতে আসা বিধবা রুনা বেগম বলেন, “বেডা ভার্সিটির ছাত্র অইয়্যাও আমগরে দিছে। বেডার লাইগ্যা দুয়া করি। আল্লাহ্ হেরে ভালা রাহুক।”

আল মাহমুদ কায়েস বলেন, “আমি একজন ছাত্র। আমার কোন আয় নেই। পরিবার থেকে পাওয়া টাকা দিয়েই চলি। ঠিক তেমনি ঈদে শপিং করার কিছু টাকা পেয়েছিলাম। তখন ভাবলাম যদি শপিং না করে মানুষের পাশে দাঁড়াই তাহলে কেমন হয়। যেই ভাবনা সেই কাজ। যে পরিমাণ অর্থ ছিলো তা দিয়ে ৩২টি পরিবারের বাজার করে ফেললাম এবং দেশরত্ন শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে অসহায়, বিধবা ও হতদরিদ্র এমন ৩২ জনের হাতে তুলে দিলাম এই ঈদ উপহার। আর হ্যাঁ, এরকম ইতিবাচক কাজের অনুপ্রেরণা আমাকে সবসময় যিনি জোগান তিনি হলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সংগ্রামী সভাপতি আল-নাহিয়ান খান জয় ভাই। আমি উনার কাছে চির কৃতজ্ঞ।
আরও পড়ুন: বাংলাদেশ মেট্রোরেল প্রকল্পে করোনায় আক্রান্ত ৬৬১ জন




ফেসবুকে আমরা







x

কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ নেতা কায়েসের ঈদ উপহার

প্রকাশিত : ০৮:৫৭:৫২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ মে ২০২১
print news

এনামুল হক,ময়মনসিংহ প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের ত্রিশালে ৩২টি পরিবারকে ঈদ উপহার প্রদান করলেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা আল মাহমুদ কায়েস।

বিজ্ঞাপন

৬ মে(বৃহস্পতিবার)  দুপুরে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে ছাত্রলীগ নেতা আল মাহমুদ কায়েস পোলাওয়ের চাল, ডাল, তেল, আলু, সাবান, সেমাই, চিনি ও মাস্ক বিতরণ করেন।

সাহায্য নিতে আসা বিধবা রুনা বেগম বলেন, “বেডা ভার্সিটির ছাত্র অইয়্যাও আমগরে দিছে। বেডার লাইগ্যা দুয়া করি। আল্লাহ্ হেরে ভালা রাহুক।”

আল মাহমুদ কায়েস বলেন, “আমি একজন ছাত্র। আমার কোন আয় নেই। পরিবার থেকে পাওয়া টাকা দিয়েই চলি। ঠিক তেমনি ঈদে শপিং করার কিছু টাকা পেয়েছিলাম। তখন ভাবলাম যদি শপিং না করে মানুষের পাশে দাঁড়াই তাহলে কেমন হয়। যেই ভাবনা সেই কাজ। যে পরিমাণ অর্থ ছিলো তা দিয়ে ৩২টি পরিবারের বাজার করে ফেললাম এবং দেশরত্ন শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে অসহায়, বিধবা ও হতদরিদ্র এমন ৩২ জনের হাতে তুলে দিলাম এই ঈদ উপহার। আর হ্যাঁ, এরকম ইতিবাচক কাজের অনুপ্রেরণা আমাকে সবসময় যিনি জোগান তিনি হলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সংগ্রামী সভাপতি আল-নাহিয়ান খান জয় ভাই। আমি উনার কাছে চির কৃতজ্ঞ।
আরও পড়ুন: বাংলাদেশ মেট্রোরেল প্রকল্পে করোনায় আক্রান্ত ৬৬১ জন